Wednesday, February 1, 2023
Homeরাজ্যcharak oath Controversey : কলকাতা মেডিকেল কলেজের পড়ুয়াদের চরক শপথ পাঠ...

charak oath Controversey : কলকাতা মেডিকেল কলেজের পড়ুয়াদের চরক শপথ পাঠ নিয়ে তুমুল বিতর্ক

ইন্ডিয়া নিউজ বাংলা,

charak oath Controversey

কলকাতা :

বিতর্কিত চরক শপথ পাঠের মধ্যে দিয়ে নতুন করে বিতর্কের জন্ম দিল কলকাতা মেডিকেল কলেজ। সোমবার কলকাতা মেডিকেল কলেজের এমবিবিএস পাঠক্রমের ক্লাস শুরু দিনেই প্রথমবর্ষের ডাক্তারি পড়ুয়াদের চরক শপথ পাঠ করানো হল। সমাজমাধ্যমে সেই ভিডিও ছড়িয়ে পড়ায় অনেকেই বিস্ময় প্রকাশ করেছেন। কারণ দেশের মধ্যে বিজেপি শাসিত গুজরাট ও কর্ণাটক ছাড়া অন্য কোন রাজ্যে মেডিকেল পড়ুয়াদের চরক শপথ পাঠ করানো হয়নি।

 হিপোক্রেটিক ওথের বদলে চরক শপথ পাঠ কলকাতা মেডিকেল কলেজে  charak oath Controversey 

১৯৪৮ সাল থেকে ডাক্তারি পেশার শুরুতেই কনভোকেশনে গোটা বিশ্বজুড়ে হিপোক্রেটিক ওথ পাঠ করেন হবু ডাক্তাররা। এই শপথের মূল কথাই হচ্ছে ডাক্তার জাতপাত সব রকম শ্রেণী বৈষম্যের ওপরে। কিন্তু বর্তমানে কেন্দ্র সরকার সব কিছুর মধ্যে হিন্দুত্ব ও গৈরিকীকরণের চেষ্ঠা জারি রেখেছ। এবার হবু ডাক্তারদের একেবারে প্রথম থেকে সেই পরিকল্পনা করেছে কেন্দ্র সরাকার এমনটাই অভিযোগ উঠছে।৭ ফেব্রুয়ারি ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ কাউন্সিল হিপোক্রেটিক ওথের বদলে চরক শপথ পাঠ করার কথা ঘোষণা করে।যে শপথের মধ্যে ধর্মীয় বিষয়টিকেই প্রাধন্য দেওয়া হয়েছে। বিশেষ করে অবৈজ্ঞানিক ধর্মীয় বিষয়কে নীরবে ডাক্তরি পড়ুয়াদের মধ্যে প্রবেশ করানো হচ্ছে। যা আগামী দিনে বড় অশনি সংকেত বলে মনে করছেন বিভিন্ন মেডিক্যাল সংগঠন।

 মেডিকেল সার্ভিস সেন্টারের প্রতিবাদ charak oath Controversey 

এই ‘চরক শপথ’ এর অতীতেও বিভিন্ন মেডিকেল ফোরামের বিরোধিতা করা হয়েছে। চরক শপথটি আয়ুর্বেদ সম্পর্কিত একটি প্রাচীন সংস্কৃত পাঠ চরক সংহিতায় উল্লেখ করা হয়েছে, যা প্রাচীন ভারতীয় চিকিৎসায় অনুশীলনকারীদের জন্য একটি আচরণবিধি নির্ধারণ করেছিল।  সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় রাজ্যের অন্য কোন মেডিকেল কলেজে চরক শপথ পাঠ করানোর কোন উদ্যোগ দেখা যায়নি। সেখানে কলকাতা মেডিকেল কলেজ কিভাবে এই চরক শপথ পাঠ করালো তা বিস্ময়ের। কলকাতা মেডিকেল কলেজের চরক শপথ পাঠ নিয়ে অতিরিক্ত আগ্রহের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে মেডিকেল সার্ভিস সেন্টার। সামাজিক মাধ্যমে মেডিকেল কলেজের এই বিতর্কিত চরক শপথপাঠ দেখে নেওয়া যাক।

কেন এই চরক শপথের বিরোধীতা করছে মেডিকেল সার্ভিস সেন্টার তা জানিয়েছেন ডাক্তার বিপ্লব চন্দ্র

 

অন্যদিকে এই ঘটনার প্রতিবাদ করেছেন ছাত্র সংগঠন এআইডিএসওর মেডিকেল ইউনিট ও। এই সংগঠনের আহ্বায়ক, ডা: সামস্ মুশাফির জানিয়েছেন

“এটি আমাদের পক্ষ থেকে একটি ভুল ছিল”  রঘুনাথ মিশ্র   charak oath Controversey 

কলকাতা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ রঘুনাথ মিশ্র  সোমবার বলেছিলেন এন এম সির গাইড লাইন মেনেই চরক শপথ নেওয়া হয়েছে। কিন্তু বিতর্ক তৈরি হওয়ায় তিনি এটিকে প্রশাসনিক ভুল বোঝাবুঝির কারণে ভুল হয়েছে বলে স্বীকার করেছেন তিনি বলেন  “এটি আমাদের পক্ষ থেকে একটি ভুল ছিল” মিশ্র বলেন, “কিছুদিন আগে এনএমসি আধিকারিকদের সঙ্গে একটি ভিডিও কনফারেন্স হয়েছিল। সেই সম্মেলনে চরক শপথের উল্লেখ ছিল। আমাদের কর্মীরা এবং কর্মকর্তারা ভুল করে এটিকে একটি সরকারী নির্দেশিকা (অনুসরণ করা বাধ্যতামূলক) হিসাবে ভুল করে এবং প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীদের শপথ করানো হয়েছিল।” “এটি আমাদের পক্ষ থেকে একটি ভুল ছিল… আমরা একটি অফিসিয়াল গাইডলাইনের জন্য একটি রেফারেন্স ভুল করেছি,” 

charak oath Controversey

আর ও পড়ুন :Anis Death: আনিশ হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে কলকাতায় বিক্ষোভ, আমতা থানার ৩ পুলিশকর্মীকে সাসপেন্ড, সিবিআই তদন্তের দাবীতে অনড় আনিশের বাবা

RELATED ARTICLES
Html code here! Replace this with any non empty raw html code and that's it

Most Popular