Saturday, January 28, 2023
HomeMunicipal PollsWest Bengal Municipal elections: Nadia উত্তপ্ত শান্তিপুর, ছাপ্পা ভোটে বাধা দিতে...

West Bengal Municipal elections: Nadia উত্তপ্ত শান্তিপুর, ছাপ্পা ভোটে বাধা দিতে গেলে পুলিশের বন্দুক কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা  

 

সুরজিৎ দাস, ইন্ডিয় নিউজ বাংলা, নদিয়া : ছাপ্পা ভোট নিয়ে দিনভর শান্তিপুর উত্তপ্ত বিভিন্ন ওয়ার্ডে ছাপ্পা ভোট দেওয়ার সময় বিক্ষিপ্ত গন্ডগোল।  তবে সবকিছু ছাপিয়ে গেল ছাপ্পা ভোটে বাধা দিতে গেলে, পুলিশের বন্দুক কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করা হল!  লাঠিচার্জ করে পুলিশ। উত্তপ্ত হয়ে ওঠে শান্তিপুর ১২৭ নং বুথ।

উত্তপ্ত শান্তিপুর:  ছাপ্পা ভোটে বাধা দিতে গেলে, পুলিশের বন্দুক কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা  

Screenshot 20220227 172153 WhatsApp

 

জোর করে বুথের ভেতর ঢুকে বিরোধীদের বার করে ছাপ্পা ভোট দেওয়ার চেষ্টা করার সময় পুলিশ বাধা দিলে হাতাহাতি শুরু হয় পুলিশের সঙ্গে। এই সময় পুলিশের বন্দুক কেড়ে নেওয়ার চেষ্টাও হয়। খবর পেয়ে বিশাল পুলিশবাহিনী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে শুরু হয় লাঠিচার্জ। সেইসঙ্গে কয়েকজনকে আটক করে পুলিশ। ঘটনাটি শান্তিপুর পৌরসভার আট নম্বর ওয়ার্ডের ১২৭ নম্বর বুথের। বিরোধীদের অভিযোগ তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা এই ঘটনা ঘটিয়েছে।

West Bengal Municipal elections : Nadia Attempt to snatch Police pistols

দুপুর তিনটে নাগাদ হঠাৎই একদল যুবক জোরপূর্বক বুথের ভেতর ঢুকে পড়ে। সিপিআইএম এবং বিজেপি এজেন্ট ও প্রার্থীদের বুথের ভেতর থেকে বের করে দেওয়া হয়। এরপরে চলছিল দেদার ছাপ্পা ভোট। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় বিশাল পুলিশবাহিনী। পুলিশের সঙ্গে রীতিমতো ধাক্কাধাক্কি শুরু হয় ছাপ্পা কারীদের। অভিযোগ কয়েক জন দুষ্কৃতী পুলিশের বন্দুক কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। এর পরেই লাঠিচার্জ করে পুলিশ।

IMG 20220227 WA0750

বেশ কয়েকজনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিরোধীরা অভিযোগ করলেও  অস্বীকার করেছে তৃণমূল।

 

ছাপ্পা ভোট দিতে গিয়ে ধরা পড়ল বহিরাগত ভুয়ো ভোটার

অন্যদিকে শান্তিপুরে অন্য একটি ওয়ার্ডে ছাপ্পা ভোট দিতে গিয়ে ধরা পড়ল বহিরাগত ভুয়ো ভোটার। শান্তিপুর পৌরসভার ৭ নম্বর ওয়ার্ডের ১৯৭ নম্বর বুথের ঘটনা। ওই ওয়ার্ডের সিপিআইএম প্রার্থী প্রীতম রায়ের অভিযোগ, ওই অভিযুক্ত বুথের ভেতর এলে তাকে দেখে সন্দেহ হয়। এর পরেই তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে তিনি পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। তাকে হাতেনাতে ধরে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়। তার পরিচয়পত্র পরীক্ষা করে দেখেন তার বাড়ি অন্য ওয়ার্ডে। এর পরেই তাকে আটক করে পুলিশ।

সিপিআইএম প্রার্থীর দাবি অভিযুক্ত শাসকদল আশ্রিত। ছাপ্পার উদ্দেশ্যে বুতের ভেতর এসেছিল সে। যদিও তৃণমূলের বিরুদ্ধে তোলা অভিযোগ অস্বীকার করেছে ওই ওয়ার্ডের তৃণমূল প্রার্থী সুব্রত ঘোষ। তিনি বলেন এই ঘটনায় তৃণমূল কোনোভাবেই জড়িত নয়।

Published by Samyajit Ghosh

RELATED ARTICLES
Html code here! Replace this with any non empty raw html code and that's it

Most Popular